করিনাকে বয়কট করে সীতা চরিত্রে ‘খাঁটি হিন্দু’ কঙ্গনাকে বেছে নেওয়ার দাবি জনতার

বলিউডের রামায়ণ নির্ভর একটি ছবি কাস্ট হতে চলেছে। এই ছবিতে অভিনয়ের জন্য বলিউডের কারিনা কাপুর খানকে অফার করা হয়েছিলো। তাকে এই ছবির সীতা চরিত্রটির অফার দেওয়া হয়েছিলো, কিন্তু এই চরিত্রে অভিনয় করবার জন্য তিনি একটি মোটা অঙ্কের পারিশ্রমিক দাবি করে বসেন। এই খবর প্রকাশে আসতেই নেট দুনিয়া জুড়ে তোলপাড় শুরু হয়ে যায় এবং পাশাপাশি করিনা খানকে বয়কট করার ট্রেন্ড শুরু হয়।

অলৌকিক দেশাই এর রামায়ণ ছবিতে অভিনয়ের জন্য করিনার কাছে প্রস্তাব গেলে করিনা ১২ কোটি পারিশ্রমিক দাবি করেন। অনান্য ছবির জন্য করিনা যেখানে ৬-৮ কোটি টাকা নিয়ে থাকেন সেখানে এই চরিত্রের অফার পেয়ে তিনি তার পারিশ্রমিক বাড়িয়েছেন বলে দাবি করা হয়। আর এরপরই নেটিজেনদের একাংশ হ্যাশট্যাগ দিয়ে বয়কট করিনা পোস্ট করতে শুরু করেন।

অনেক নেটজেন দাবি করেন যে,সীতার চরিত্রে কঙ্গনাকে একেবারে মানাবে না। কেউ আবার বলেন যে যার ছেলে তৈমুর সে কি করে সীতার চরিত্রে অভিনয় করতে পারে! এইভাবে নানান রকম কটাক্ষের সৃষ্টি হয় করিনা কাপুর খানকে ঘিরে। সীতা চরিত্রের জন্য অন্য একজন অভিনেত্রীকে কাস্ট করার দাবিও জোরালো হয়। সীতা চরিত্রে অভিনয় করার জন্য কঙ্গনা রানাওয়াত, ইয়ামি গৌতম ও অনুষ্কা শেট্টিকে কাস্ট করার দাবি উঠেছে। তবে এই তিনজনের মধ্যে ও আবার কাঙ্গানা ও ইয়ামি গৌতম তো সোশ্যাল মিডিয়ায় ট্রেন্ড হয়ে গিয়েছেন বলা যায়। অনেকেই টুইটারে লিখেছেন যে সীতা চরিত্রের জন্য কঙ্গনা রানাওয়াত উপযুক্ত। পরবর্তীকালে শোনা যায় যে করিনা আদৌ নাকি এই চরিত্র করছেন না।

আবার বড় ছেলের নাম নিয়েও করিনাকে কটাক্ষের মুখোমুখি হতে হয়! নেটিজেনদের কথায়,তৈমুর লঙের নামেই প্রথম ছেলের নাম রেখেছেন তারা। যদিও অভিনেত্রী বারংবার বলেছেন যে তৈমুরের অর্থ লোহা এবং সেই কারণেই তারা এই নামটি দিয়েছেন। কারণ যাই হোক মোটকথা নেটিজেনরা করিনার ওপর এখন বেশ চটেছেন।

One thought on “করিনাকে বয়কট করে সীতা চরিত্রে ‘খাঁটি হিন্দু’ কঙ্গনাকে বেছে নেওয়ার দাবি জনতার

error: Content is protected !!