লকডাউনের মাঝে ভায়োলিন বাজিয়ে অপূর্ব প্রতিভার পরিচয় দিলেন ষাটোর্ধ্ব ব্যক্তি, মন ছুয়ে গেল সামাজিক মাধ্যম ব্যবহারকারীদের

  • 84
    Shares


দেশে চতুর্থ দফার লকডাউন চলছে। যদিও ৩১ মে শেষ হওয়ার কথা। কিন্তু তা যে আদৌ কবে শেষ হবে তা নিয়ে থেকে গেছে ধন্ধ্। তবে এরই মধ্যে দুমাস ধরে ঘরবন্দি মানুষের সময় কাটানোর অন্যতম মাধ্যম হয়ে উঠেছে সামাজিক মাধ্যম। যদিও আগে থেকেই ছিল। কিন্তু এই কদিনে যেন বেশি করে পরিচিত প্রিয় হয়ে উঠেছে মাধ্যমটি। তারসঙ্গে আবার নব সংযোজন টিকটক ভিগোর মতো অ্যাপ গুলি। তাই তো সময় কাটাতে গিয়ে বুঁদ হয়ে সেই অ্যাপে মুখ গুঁজেছেন সকলেই। তবে শুধু যে চ্যাট করছেন তা নয় ফেসবুকে এমনই এক একটি ভিডিও শেয়ার হচ্ছে যা একদিকে তো শিক্ষনীয় তারসঙ্গে আবার আমাদের অনেক কিছুর সঙ্গে পরিচিত করে তুলছে।


অনেক থুদে শিল্পী দের সঙ্গে আমরা পরিচিত হয়েছি। প্রজ্ঞা ঠাকুরের মতো শিশুদের গান কবিতা নাচও দেখেছি। আবার বয়স্ক এক নৃত্যশিল্পীর নাচও দেখেছি কিন্তু এবার এক অনন্য প্রতিভার সাক্ষী থাকলাম আমরা। ভায়োলিনের সঙ্গে সুন্দর স্বর্ণযুগের গানে তাল মেলালেন এক ব্যক্তি। যদিও বৃদ্ধ বললে ভুল হয়না। বয়স খুব কম হলেও সত্তোরোর্ধ্ব। কিন্তু হাতে ও সুরে এমনই যাদু যে অবলীলায় সাড়ে তিন মিনিট ধরে বাজিয়ে ফেললেন অসাধারণ একটি গানের সুরকে।
ভায়োলিনের তাল ও ছন্দ এমনই মিলিয়েছেন যে তা সত্যি সেই গানের কথাকে সুর দিয়ে ভরিয়ে দিয়েছে। একমনে রাস্তার ধারে দাঁড়িয়ে ওই বৃদ্ধ ভায়োলিন বাজালেন। যা ক্যামেরাবন্দি করলেন পথচলতি এক ব্যক্তি। তারপর সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করতেই রীতিমতো ভাইরাল। সকলেই ওই বৃদ্ধের গুণ ও প্রতিভার প্রশংসায় পঞ্চমুখ হয়েছেন।


ভিন্ন ভিন্ন মতামতে ভিডিওর কমেন্ট বক্স ভরিয়ে দিয়েছেন। তাঁর অনবদ্য সুরের যাদু মন ছুঁয়েছে সমস্ত সোশ্যাল মিডিয়া ব্যবহারকারীদের। সকলেই তাঁর প্রতিভার প্রশংসায় পঞ্চমুখ হয়েছেন। অনেকেই বলছেন বয়স বাড়লেও নিজের প্রতিভাকে একই ভাবে ধরে রেখেছেন তিনি। যা এককথায় অনবদ্য।

error: Content is protected !!