একটি পাতিলেবুর হাজার গুণ, মেদ ঝরানো থেকে তরুণাস্থি শক্ত পোক্ত এছাড়াও…

  • 387
    Shares

এই গরমে প্রতিদিন খাবারের তালিকায় যদি একটি করে পাতি লেবু রাখা যায় সে ক্ষেত্রে উপকারিতা নিশ্চয়ই আর মুখে বলতে হয় না। শুধুমাত্র যে খাবারের স্বাদকে বদলে যায় এমনটা নয় এই ছোট্ট একটি ফলের মধ্যে রয়েছে হাজার গুণাগুণ হাজার উপকারিতা। তাই তো বিশেষজ্ঞরা প্রতিদিন ডায়েট চার্টে একটি করে পাতিলেবু রাখার পরামর্শ দিয়ে থাকেন। তবে পাতি লেবুর বিভিন্ন ধরন থাকে , কাগজি লেবু পাতি লেবু সহ অন্যান্য ধরনের লেবু থাকে তবে সব লেবুর ক্ষেত্রে কিন্তু একই গুণাগুণ। মেদ ঝরানো থেকে শুরু করে অস্থিকে শক্তপোক্ত করা সব ক্ষেত্রেই একটি মাত্র ছোট্ট ফোনের দারুণ গুণাগুণ রয়েছে। তবে ব্যবহারের ক্ষেত্রেও কিছু বৈষম্য থাকে তাই দেখে নেওয়া যাক পাতিলেবুকে ঠিক কী ভাবে ব্যবহার করতে হবে-                                             

1. মেদ ছড়িয়ে ফেলা- প্রতিদিন সকালে উষ্ণ গরম জলে একটি গোটা পাতিলেবুর রস মিশিয়ে খাওয়া গেলে সহজেই মেদ ঝড়ে যায় যদিও যাদের অ্যাসিডিটির সমস্যা রয়েছে তাদের ক্ষেত্রে কিন্তু এই টিপস না প্রয়োগ করাই ভাল।

2. গরমে শরীর সুস্থ রাখতে- তীব্র গরমের দাবদাহে শরীরকে ঠান্ডা করতে পাতিলেবু বিশেষভাবে সাহায্য করে আর এই সময় পাতিলেবুর রস শরীরের উন্নতি সাধনে সাহায্য করে।

3. হাড় শক্তপোক্ত করতে- যেহেতু লেবুতে ভিটামিন সি আছে তাই এই জিনিসটি হাড় শক্তপোক্ত করতে এবং বিভিন্ন টিস্যুকে সুস্থ রাখতে সাহায্য করে।

4. রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়িয়ে তোলে- যদি প্রতিদিন খাবারের তালিকায় একটি করে পাতিলেবু রাখা যায় সে ক্ষেত্রে সর্দি কাশি সহজেই দূর হয়ে যায়।

5. শরীরে পিএইচ ব্যালান্স ঠিক করে- একটি পাতিলেবু বিএমআর বেসিক মেটাবলিক রেট ভাল রাখতে সাহায্য করে পাশাপাশি শরীরে বি এই ছেড়ে ব্যালেন্স ঠিক রাখে।

6. এনার্জি বাড়াতেও গুণাগুণ জুরি মেলা ভার- একটি মাত্র পাতি লেবু যা এনার্জি বাড়ায় বহুগুণে তাই তো প্রতিদিন একটি করে পাতিলেবু খেলে শরীরে এনার্জি বহু গুণে বাড়ে তাই তো দৌড়ঝাঁপ বা অন্যান্য ক্ষেত্রেও সমস্যা হয় না।