আগামী বছর অশ্বিন নয় কার্তিকে দুর্গাপুজো, এই কারণেই ঘটবে নজির বিহীন ঘটনা

পশ্চিমবঙ্গ 24×7 ডিজিটাল ডেস্ক: মহালয়ার ভোরে বীরেন্দ্রকৃষ্ণ ভদ্রের কণ্ঠে চণ্ডীপাঠ শুনলেই যেন পুজো পুজো ভাব চলে আসে৷ যদিও তার অনেক আগে থেকেই মাঠে মাঠে কাশফুল মায়ের আগমনী বার্তা দেয় কিন্তু মহালয়া থেকে যেন পুজোর আমেজ শুরু হয় বঙ্গে৷ মহালয়ার পর থেকে প্রতিপদ দ্বিতীয়া তৃতীয়া চতুর্থী পঞ্চমী ষষ্ঠী এ ভাবেই দশমী অবধি চলে৷ কিন্তু আগামী বছর আর তেমনটা হবে না, কারণ এক সপ্তাহ বা দু সপ্তাহ নয় মহালয়ার এক মাস পরেই হবে দুর্গাপূজা৷ যা কি না সারদা উত্সবের ইতিহাসে নজিরবিহীন ঘটনা বলেই মনে করছে সকলেই৷

মহালয়ার দিন পরে দেবীর বোধন নয় 35 দিন পর শুরু হবে দেবী দুর্গার বোধন৷ বিশুদ্ধ পঞ্জিকা মতে বলছে একই কথা৷ অর্থাত্ 2020 সালের 17 সেপ্টেম্বর তারিখে মহালয়া হবে কিন্তু মহাষষ্ঠী হবে 22 অক্টোবর তারিখে৷ হিন্দু সনাতন ধর্মে দুটি অমাবস্যা যদি একই মাসে পড়ে সে ক্ষেত্রে সেই মাসটিকে মল মাস ধরা হয় ঠিক তেমনটাই ঘটছে 1427 বঙ্গাব্দের আশ্বিন মাসে৷ তাই তো আগামী বছর পুজো আর আশ্বিনে নয় হবে কার দিকে অর্থাত্ শারদ উত্সব হয়ে উঠবে হেমন্ত উত্সব৷

Image Credit- the financial express

এমনটা শেষ বার ঘটেছিল 2001 সালে৷ আবারও উনিশ বছর পর একই ঘটনার পুনরাবৃত্তি হতে চলেছে৷ 17 সেপ্টেম্বর তারিখে অমাবস্যা তারপর আবারও 16 অক্টোবর তারিখে অমাবস্যা হবে সে ক্ষেত্রে রবি রাশি কন্যা রাশিতে প্রবেশ করবে এবং দুটি অমাবস্যার মাঝে আশ্বিন মাস মলমাস হয়ে গেছে তাই পুজো সহ যে কোনও শুভ কাজ এই সময় করা যায় না৷ তাই তো পুজো হবে কার দিকে৷ তাই অনেকেই বলছেন দেবীর অকাল তোর বধূর হতে চলেছে আগামী বছর৷

উল্লেখ্য এ বছর 28 সেপ্টেম্বর তারিখে মহালয়া হয়েছে সেই অনুযায়ী আজ অর্থাত্ শনিবার মহাসপ্তমী৷ হিসেবের নিরিখে প্রতি বছর তাই হয়৷ মহালয়ার আট দিনের মাথায় মহাসপ্তমী৷ তারপর অষ্টমী নবমী এবং দশমী কিন্তু আগামী বছর তেমনটা ঘটবে না৷ যদিও এ খবর জানার পর আমবাঙালির মনে একটু হলেও দুঃখের ছাপ পড়েছে৷

Loading...

error: Content is protected !!